সে আপনাকে আর ভালবাসে না! বুঝবেন কিভাবে?

ভালোবাসা নাকি লোভ লালসা, বুঝবেন কিভাবে
ভালোবাসা নাকি লোভ লালসা, বুঝবেন কিভাবে
Spread the love

সে আপনাকে আর ভালবাসে না! বুঝবেন কিভাবে?

নারীর বড় অস্র চুপ থকা। এরা ভালবাসলেও চুপ থাকে আবার আপনার থেকে দূরে যেতে চাইলেও নিরবে চলে যাবে। তবে চেষ্টা করবে পুরুষকে ব্লেইম করে যেতে। নারী যাওয়ার আগে নিজের গায়ে দোষ রাখতে চায় না।

আপনার কাছে কি মনেহয় আপনার প্রিয়তমা বদলে গেছে? নারী যদি সচরচরের থেকে ভিন্ন আচরন করে তবে বুঝতে হবে এর পেছনে কিছু কারন আছে। প্রিয়তমার কিছু আচরন আছে যা দেখেই বুঝতে পারবেন সে আপনাকে আর ভালবাসে না। আজকের আমার এই লেখা তাদের জন্য যারা তাদের গার্লফ্রেন্ডের আচার-আচরণে কনফিউজ থাকেন।

মেয়ে চুপ আছে মানে আপনাকে বুঝে নিতে হবে আপনার জীবনে ভিন্ন কিছু ঘটতে যাচ্ছে।

মেয়েরা আচার-আচরণে সেনসিটিভ হয়ে থাকে। তাদের মনে যদি একবার ঢুকে “আপনার সাথে তার জীবন যেভাবে চলা উচিৎ ছিল সেভাবে চলছে না”- সে হতাস হয়ে পরবে। আর এই ভাবনা আসলো মানেই সে আপনার থেকে সরে যেতে চাইবে। ধীরে ধীরে তার মাঝে পরিবর্তন আসতে থাকবে যা আপনার নজরেও পরবে। এসকল পরিবর্তন আপনি তার চোখে দেখতে পাবেন। তার চোখে তাকালে তার মন বুঝতে পারবেন। বুঝতে পারবেন তার প্রতিটা স্পর্শে। পরিবর্তন পাবেন তার কথার ধরনে। সে বদলে যাচ্ছে মানে সে সরে যাচ্ছে আপনার থেকে। আর ফিরবে না সে আপনার জীবনে।

আসুন জেনে নেই কি দেখে বুঝবেন সে আপনার জীবন থেকে দূরে সরে যাচ্ছে…

অবহেলা

মেয়েরা যখন আপনাকে আর অনুভব করবে না বা ভালবাসবে না দেখবেন “সে আপনাকে অবহেলা করছে”। একটু লক্ষ্য করলেই দেখবেন “বন্ধু-বান্ধুবিদের উপস্থিতে সে আপনাকে ইগনোর করছে। তার পরিচিতের সামনে আপনাকে অবহেলা করছে বা তার কাছে আপনার মূল্যায়ন নাই এমন একটা ভাব দেখাচ্ছে। মেয়ের এড়িয়ে চলার মনোভাব দেখলেই বুঝে নিবেন আপনার প্রতি তার আর কোনও আগ্রহ নাই।

আমি কেন্দ্রিকতা

মেয়েরা যখন একটা সম্পর্কের মাঝে থাকে তখন সে পুরোটাই তার প্রিয়তমর মাঝে ডুবে থাকে। সে আপনার সাথে রিলেশানশিপে আছে মানে তার শতভাগ চিন্তা চেতনায় আপনি আছেন। তার পুরোটা মনোযোগে থাকবেন আপনি। এর পরিবর্তন মানেই আপনি তার মন থেকে মুছে যাচ্ছেন। সে(মেয়েরা) যদি একবার সিদ্ধান্ত নেয় যে আপনাকে তার জীবন থেকে মুছে ফেলবে তবে সে এটা করবেই যা ছেলেরা করতে পারে না, শত চাইলেও পারে না। তার(মেয়েরা তাদের) মনে গেথে ফেলে এটা তাকে করতেই হবে,। সফলও হয়। তখন সে নিজেকে নিজের হিরো মনে করে। মনে করে আমিই সব। আমার থেকে কিছু নাই আর। এবং আপনাকে মন থেকে ছুড়ে ফেলে দেওয়ার চেষ্টা করে এবং ফেলেও দেয় এক সময়ে। তার আচরনে যদি দেখতে পান সে আপনার থেকে তার নিজের দিক বেশি ভাবছে বা আপনার ভাবনার মূল্যায়ন না করে নিজের কথাই ভাবছে তবে বুঝে নিবেন তার জীবনে আর আপনার স্থান নাই। হয়ত প্রথম দিকে আপনাকে বুঝাবে যে আপনি সব বাস্তবে কিছু দিন পর দেখবেন আপনি গ্রেট জিরো ছিলেন তার জীবনে।

আত্ম-নির্ভরশীলতা

যখনই আপনি দেখবেন তার বাহ্যিক আচরণে পরিবর্তন আসছে সাথে সাথে দেখবেন তাদের কথা বার্তা বদলে গেছে। কারনে অকারনে আপনার সাথে রুঢ় বিহেভ করছে। দেখবেন সে যখন তখন তার নির্ভরশীলতার কথা বলবে। আর এমনটা দেখলেই বুঝবেন আপনার ভালবাসা আর তার হৃদয়কে আন্দোলিত করছে না।

একটা প্রচলিত প্রবাদ আছে “মেয়েদের আচরন কথা বলে” হ্যাঁ তাদের অঙ্গভঙ্গি শব্দের থেকে বেশি কথা বলে। তাদের প্রতিটা মোভমেন্ট এক একটা কথার ঝুড়ি। পরিশেষে এটাই বলতে পারি “আগের থেকে মেয়েরা যতটা ভিন্ন আচরন করবে বুঝে নিবেন আপনি তার জীবন থেকে ততোটাই দূরে সরে যাচ্ছেন মানে আপনাকে দূরে সরিয়ে দেওয়া হচ্ছে”। তার আচরণে পরিবর্তন আসা মানেই আপনাকে সে দূরে সরিয়ে দিচ্ছে।

ভাল থাকুন। ভুল-ত্রুটি নিজ দায়িত্বে সঠিক করে পড়ে নিবেন। ধন্যবাদ।


Spread the love

Aspire Cot

I am just a grave of thoughts. I know only one thing that I know nothing. people with nothing to declare carry the most but be sure I am exceptional.

You may also like...

Leave a Reply

Your email address will not be published.